1. bdfocas24@gmail.com : newsroom :
  2. arifahok27@gmail.com : Alifa hok : Alifa hok
  3. newsgopalpur@gmail.com : Rokon zzaman : Rokon zzaman
  4. akmpalash75@gmail.com : Shamsuzzoha Palash : Shamsuzzoha Palash
করোনা : রোগীদের চিকিৎসা দিতে যেয়ে নিজেই আক্রান্ত হলেন, ডাঃ শুভ - www.bdfocas24.com
বুধবার, ২৮ জুলাই ২০২১, ১২:৪৪ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম
পেগাসাস আছে বলে মানুষ রাতে নিশ্চিন্তে ঘুমোতে পারে : ইজরায়েলি সংস্থা NSO নেশাগ্রস্থ সন্তানের হাতে মা খুন : র‍্যাব ১৩’র হাতে হত্যাকারী মাদকাসক্ত ছেলে গ্রেফতার দামুড়হুদার কার্পাসডাঙ্গা বাজারে সরকারি খাস জমিতে অবৈধভাবে দোকানঘর নির্মাণ : ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান দামুড়হুদায় অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে গৃহবধূকে ধর্ষণের চেষ্টা ও স্বর্ণালংকার, নগদ টাকা ছিনিয়ে নেওয়ার অভিযোগ দামুড়হুদায় ভ্রাম্যমাণ আদালতে ১৬ টি মামলায় ২৮ জনকে অর্থদন্ড নরসিংদী জেলা যুবলীগের নেতৃত্বে কলকাতার মিথুন সাহা ! সেনাবাহিনীর সহযোগীতায় স্বাস্থ্য বিধি মেনে ভিজিএফ এর চাল বিতরন করলেন পৌর মেয়র বিপ্লব নোয়াখালীর হাতিয়ায় হত্যাসহ ২৪ মামলার আসামি গ্রেফতার সেন্ট্রাল অক্সিজেন সিস্টেম, আইসিইউ, পিসিআর ল্যাব স্থাপনের দাবিতে গাইবান্ধায় নাগরিক মঞ্চের মানববন্ধন অনুষ্ঠিত করোনা : রোগীদের চিকিৎসা দিতে যেয়ে নিজেই আক্রান্ত হলেন, ডাঃ শুভ

করোনা : রোগীদের চিকিৎসা দিতে যেয়ে নিজেই আক্রান্ত হলেন, ডাঃ শুভ

দামুড়হুদা প্রতিনিধি:
  • আপডেট টাইম: রবিবার, ১১ জুলাই, ২০২১
  • ১৭১ বার দেখা

দামুড়হুদা উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা করোনার রোগীদের চিকিৎসা দিতে যেয়ে নিজেই করোনায় আক্রান্ত হলেন ডাঃ শুভ। দামুড়হুদা উপজেলাবাসী যার নাম দিয়েছে মানবতার ফেরিওয়ালা।

আপনি কেমন তা আপনার কর্মেই বলে দেবে। আপনার কর্মগুনেই আপনি হবেন আলোচিত, আবার কখনও বা সমালোচিত।

এমনই এক কর্মগুনে বরাবরের মতো সকলের ভালোবাসায় সিক্ত হলেন দামুড়হুদা উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ আবু হেনা মোহাম্মদ জামাল শুভ। দামুড়হুদা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে যোগদানের পর থেকেই উপজেলাবাসীর কাছে প্রিয় হয়ে উঠেছেন খুব অল্প সময়ে।

করোনার সংক্রমন যখন বৈশ্বিক মহামারী হিসেবে মানবিকতাকে খুজে ফিরছে তখন অনেক চিত্রই মানুষের মনকে উদ্বেলিত করছে। সম্পর্কগুলোকে আজ আবার যেন ভাবাচ্ছে নতুন করে। ভীতির কাছে হালকা হওয়া সম্পর্কগুলোকে মানবতার চাদরে ঢেকে দিলেন এই চিকিৎসক।

করোনার শুরু থেকেই জীবনের মায়া ত্যাগ করে মানবতার তরে নিজেকে যেন প্রায় উৎসর্গ করে ফেললেন ডাঃ আবু হেনা মোহাম্মদ জামাল শুভ। ভয়কে জয় করে দামুড়হুদা উপজেলাবাসীকে করোনার এই মহামারীতে চিকিৎসা সেবা দিতে যেয়ে আজ নিজেই করোনা আক্রান্ত হলেন তিনি।

জানা গেছে, দামুড়হুদা উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা করোনা রোগীদের চিকিৎসা সেবা দিতে যেয়ে নিজেই করোনা আক্রান্ত হয়েছেন।

চিকিৎসক হিসেবে করোনা রোগীদের চিকিৎসা দেয়াটা বেশ চ্যালেন্জের ছিলো দামুড়হুদা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মতো প্রতিষ্ঠানে। যেহেতু এটি কোভিড ডেডিকেটেড হাসপাতাল না তাই বেশ ঝুকি নিয়েই এখানে করোনায় আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসা সেবা দিতে হচ্ছিল।

উল্লেখ্য দামুড়হুদা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে উপজেলাবাসীকে করোনার মহামারীতে চিকিৎসা সেবা দেবার জন্য ১৮টি বেডে রোগীদের ভর্তি রেখে যথাসাধ্য চিকিৎসাসেবা চালু রেখেছেন এই কর্মকর্তা। সার্বক্ষনিক তদারকি করেছেন তিনি নিজেই।

যদিও সরকারীভাবে এখানে করোনা রোগীদের চিকিৎসা দেবার মতো কোন সুযোগ-সুবিধাই দেয়া হয়নি। তারপরও শুধুমাত্র মানবিক দিক বিবেচনা করে এবং জেলার একমাত্র কোভিড ডেডিকেটেড হাসপাতালে জায়গা না পাওয়ায় একপ্রকার বাধ্য হয়েই এই মহৎ কাজটি বেসরকারী সহায়তায় চালু করেন তিনি।

কিন্তু যেহেতু স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সটিতে করোনার রোগীদের চিকিৎসা সেবা দেবার জন্য আলাদাভাবে কোন চিকিৎসক নাই, তাই তিনি নিজেই দ্বায়িত্ব তুলে নেন কাঁধে।

একদিকে হাসপাতালের সাধারন রোগীদের চিকিৎসা সেবার সার্বিক দায়িত্ব পালন করা তার উপর আবার নতুন করে করোনা ইউনিটের রোগীদের জন্য সার্বক্ষনিক দেখভাল করা সবমিলিয়ে এক পাহাড়সমান দ্বায়িত্বপালন তাকে যেন নতুন করে কর্মদক্ষতার পরীক্ষায় ফেলে দিয়েছিলো। কিন্তু সর্বক্ষেত্রে সফলতা দেখিয়ে নিরলসভাবে করোনা রোগীদের চিকিৎসা সেবা দিয়ে যাচ্ছিলেন একাই।

কিন্তু ভাগ্যের কাছে হেরে যেয়ে উপজেলার করোনায় আক্রান্ত রোগীদের জন্য আশীর্বাদ হয়ে আশা এই কর্মকর্তা নিজেই করোনা আক্রান্ত হয়ে গেলেন শেষ পর্যন্ত।

তবে তার এই মানবিকতায় মুগ্ধ উপজেলাবাসী। হাসপাতালটিতে চিকিৎসা নিতে আসা অনেক রোগীর স্বজনদের মুখেই শোনা গেলো তার মানবিকতার গল্প।

যদিও চিকিৎসা সেবা দিতে যেয়ে করোনায় আক্রান্ত হওয়ার গল্পটা নতুন নয় কিন্তু তিনি যা করেছেন তা কিন্তু নতুন কিছুই। তাই মানবিকতার মাপকাঠিতে মানুষের ভালোবাসা আর দোয়া পাওয়াটা অপরিহার্যই বটে।

এ বিষয়ে দামুড়হুদা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. ফারহানা ওয়াহিদ তানি বলেন, স্যার আমাদের জন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন। এই মুহুর্তে হাসপাতালের সাধারন চিকিৎসা কার্যক্রম পরিচালনা করাই যেখানে দূরুহ সেখানে তিনি একক প্রচেষ্টায় করোনা ইউনিট পরিচালনা করেছেন।

যেহেতু আমাদের রেগুলার ডিউটি করার জন্যই পর্যাপ্ত চিকিৎসক নাই সেখানে এমন সেবা দেয়াটা সত্যিকার অর্থেই প্রশংসার দাবী রাখে।

এ বিষয়ে দামুড়হুদা নিউ ডিজিটাল (প্রাঃ) হাসপাতাল ও মেডিসিন হাউজের স্বত্তাধিকারী আব্দুল খালেক বলেন, ডাঃ আবু হেনা মোহাম্মদ জামাল শুভ স্যার দামুড়হুদার মানুষের জন্য যা করলেন তা সবাইকে স্বীকার করতেই হবে। তিনি বলেন আপনি কি করবেন যখন দেখবেন চিকিৎসার অভাবে একজন মানুষ মারা যাচ্ছেন কিন্তু চিকিৎসা পাচ্ছেন না। তিনি চিকিৎসা বঞ্চিত হতে যাওয়া ওই মানুষগুলোকে চিকিৎসা সেবা প্রাপ্তি নিশ্চিত করেছেন। তিনি আরো বলেন আমরা তার জন্য দোয় করি যেন দ্রুত সুস্থ্য হয়ে তিনি আবার আমাদের মাঝে ফিরে আসেন।

এ বিষয়ে নিয়ে কথা বলতে চাইলে, দামুড়হুদা উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা.আবু হেনা মোহাম্মদ জামাল শুভ দুটি কথাই বললেন,  “আমি একজন চিকিৎসক আর চিকিৎসক হিসেবে আমি আমার দ্বায়িত্বটাই পালন করেছি। আপনারা আমার জন্য দোয়া করবেন, সুস্থ হয়ে আবার যেন উপজেলাবাসীর সেবা দিতে পারি।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো খবর

২০২০ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত |গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের তথ্য মন্ত্রনালয়ে নিবন্ধনের জন্য আবেদিত।

সাইট ডিজাইন এস.এম.সাগর-01867-010788